বিএনপির ৮ নেতার ব্যাংক হিসাব তলব করেছে দুদকের

0
305

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

বিএনপির শীর্ষ পর্যায়ের আট নেতার লেনদেনের তথ্য চেয়ে আট ব্যাংকের কাছে চিঠি দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।এ ছাড়া আরো ২ জনের ব্যাংক হিসাব চেয়েছে দুদক।

বুধবার দুদকের উপ-পরিচালক সামছুল আলম স্বাক্ষরিত চিঠিগুলো ব্যাংকগুলোর প্রধান কার্যালয়ে ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) বরাবরে পাঠানো হয়।

যে ১০ জনের লেনদেনের তথ্য চেয়ে দুদক চিঠি দিয়েছে তারা হলেন— বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মির্জা আব্বাস, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, নজরুল ইসলাম খান, সহ সভাপতি আবদুল আউয়াল মিন্টু, এম মোর্শেদ খান, যুগ্ম মহাসচিব হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, নির্বাহী সদস্য তাবিথ আউয়াল, মোর্শেদ খানের ছেলে ফয়সাল মোর্শেদ খান এবং ঢাকা ব্যাংকের এমডি ও সিইও সৈয়দ মাহবুবুর রহমান।

চিঠিতে বলা হয়, গত বছরের জানুয়ারি থেকে চলতি বছরের মার্চ পর্যন্ত সময়ে তাদের লেনদেনের হিসাব আগামী ২২ এপ্রিলের মধ্যে ঢাকায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে পেশ করতে হবে।

যেসব ব্যাংকে চিঠি দেওয়া হয়েছে সেগুলো হচ্ছে— স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড, এইচএসবিসি, ডাচ বাংলা, ন্যাশনাল, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী, এবি, ঢাকা ও ব্যাংক এশিয়া।

দুদকের চিঠিতে বলা হয়, এই ১০ জনের বিরুদ্ধে গত এক মাসের ব্যবধানে আট ব্যাংক থেকে মানিলন্ডারিং, সন্দেহজনকভাবে ১২৫ কোটি টাকা উত্তোলন ও দেশে-বিদেশে অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ রয়েছে।

জানা গেছে, বিএনপির আট নেতাসহ এই ১০ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ অনুসন্ধান করছে দুদক উপ-পরিচালক সামছুল আলমের নেতৃত্বে দুই সদস্যের বিশেষ একটি কমিটি। কমিটির অপর সদস্য হলেন দুদকের সহকারী পরিচালক মো. সালাহ উদ্দিন।

সূত্র জানায়, অভিযোগটি অনুসন্ধান শেষে কমিশনে প্রতিবেদন পেশ করা হবে। অনুসন্ধানে যাদের বিরুদ্ধে ওই আট ব্যাংকে অস্বাভাবিক, সন্দেহজনক লেনদেন ও নামে-বেনামে জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদের প্রমাণ পাওয়া যাবে তাদের বিরুদে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। আর যাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির প্রমাণ পাওয়া যাবে না তাদেরকে অভিযোগ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here