রাজশাহীতে প্রশ্ন ফাঁসচক্রের এক সদস্য আটক করেছে র‌্যাব

0
295

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

রাজশাহীতে রবিউল ইসলাম ওরফে জনি নামে প্রশ্ন ফাঁসকারী চক্রের এক সদস্যকে আটক করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। চলতি এইচএসসি পরীক্ষাতেও সে অন্তত পাঁচজনকে প্রশ্নপত্র দিয়েছে। তবে এবারের প্রশ্নগুলো আসল না নকল, তা জানার চেষ্টা করছে র‌্যাব।

জনির বাড়ি জেলার বাগমারা উপজেলার সাইধাড়া গ্রামে। গতকাল বুধবার সন্ধ্যা সাতটার দিকে নিজ গ্রাম থেকেই তাকে আটক করা হয়।

র‌্যাব-৫–এর উপ-অধিনায়ক এ এম আশরাফুল ইসলাম জানান, প্রশ্ন ফাঁসকারী চক্রের সক্রিয় সদস্য জনি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক, ইমো এবং হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে সে প্রশ্ন সংগ্রহ ও সরবরাহ করত।

মেজর আশরাফুল জানান, আটকের পর জনিকে র‌্যাব-৫–এর কার্যালয়ে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এ পর্যন্ত সে প্রশ্ন ফাঁস করা চক্রের অন্তত ২৫ জনের নাম জানিয়েছে। দেশের বিভিন্ন স্থানে তাদের বাড়ি। এদের কাছ থেকেই প্রশ্ন আসত জনির কাছে। তারপর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ব্যবহার করে সে রাজশাহী অঞ্চলের পরীক্ষার্থীদের কাছে প্রশ্ন সরবরাহ করত।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জনি আরও জানিয়েছে, দীর্ঘ দিন ধরেই সে এ কাজ করে আসছে। কখনো আসল, কখনো নকল প্রশ্ন দিয়ে টাকা হাতিয়ে নিয়েছে সে।
গেল এসএসসি ও জেএসসি পরীক্ষায় সে অনেক পরীক্ষার্থী ও তাদের স্বজনদের কাছে প্রশ্ন সরবরাহ করেছে। এ জন্য বিকাশের মাধ্যমে টাকা নিয়েছে। চলতি এইচএসসি পরীক্ষাতেও সে অন্তত পাঁচজনকে প্রশ্ন দিয়েছে। তবে এবারের প্রশ্নগুলো আসল না নকল, তা জানার চেষ্টা করছে র‌্যাব।

র‌্যাব কর্মকর্তা আশরাফুল ইসলাম জানান, জনির মোবাইলের দুটি সিমে বিকাশে অস্বাভাবিক লেনদেন পাওয়া গেছে। জনির দেওয়া তথ্য যাচাই-বাছাই করে চক্রের অন্য সদস্যদেরও আইনের আওতায় আনা হবে। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে গতকাল রাতেই জনিকে বাগমারা থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here